কি খেলে খাবার তাড়াতাড়ি হজম হয়

আমাদের সবার শরীরে খাবার যদি ঠিক মতো না হজম হয় তা হলে দেখা দিতে পারে নানা রকম সমস্যা। হজম শক্তি না থাকলে শুধু খেলেই হবে না কারণ এটা কে তো আবার বের করতে হবে। হজম ঠিক ঠাক না হলে নানা রকম সমস্যা হতে পারে যেমন, পেট ফেঁপে যায়, পেটে ব্যথা করে, ডায়রিয়া, এসিডিটি এমন নানা রকম সমস্যা হতে পারে। তাই আমাদের সবার জীবন ভালো ভাবে যেনো কাটে তার জন্য হজম শক্তি ঠিক রাখা দরকার। 

কি খেলে খাবার তাড়াতাড়ি হজম হয়

হজম শক্তি যদি না থাকে বা কমে যায় তা হলে আমরা অনেক সময় অনেক চিন্তা করি যে এবার কি করবো আমি হয়তো আর বাঁচব না। তবে হজম শক্তি হবে যদি আপনে কিছু মেনে চলেন। যেমন মনে রাখতে হবে যে কি খেলে আমার হজম ঠিক ঠাক হবে, কি ব্যয়াম করতে হবে, কি পোশাক পড়তে হবে। এসব যদি আপনে জানেন তা হলে আর কোনো দিন এমন সমস্যা হবে না। 

সুচিপত্র: কি খেলে খাবার তাড়াতাড়ি হজম হয়

  • কি খাবার খেলে তারাতাড়ি হজম হবে 
  •  কি কি ব্যয়াম করতে হবে 
  • একদিনে কেমন ঘুমানো প্রয়োজন 
  • নেশা জাতীয় খাবার কি খাওয়া যাবে 
  • শেষকথা – কি খেলে খাবার তাড়াতাড়ি হজম হয়

কি খেলে খাবার তারাতাড়ি হজম হয়

খাবার সব সময় ভালো করে চিবিয়ে খেতে হবে আমাদের সবার। কারণ ভালো করে খাবার চিবিয়ে খেলে তার পাচকরস ততো তারাতাড়ি হজম করে থাকে। খাবার এর সাথে লেবু রাখতে হবে। আবার আপনে খাওয়ার পরে পানির সাথে লেবুর রস বের করে মিশিয়ে খেতে পারেন। এতে আপনার খাবার তারাতাড়ি হজম হবে। আবার অনেক এ খাবার হজম করার জন্য দুধ খেয়ে থাকে।আপনে এটাও করতে পারবেন আবার যদি কোনো কারণে দুধ না খান তা হলে দই খেতে পারেন আপনারা।

দই ও খাবার হজম করতে সাহায্য করে থাকে। প্রতিদিন ক্যালসিয়াম যুক্ত খাবার বেশি করে খাওয়া দরকার। কারণ খাবারে অনেক পরিমাণ ক্যালসিয়াম থাকলে সেই খাবার তারাতাড়ি হজম করতে সাহায্য করে থাকে। খাবার তারাতাড়ি হজম করাতে চাইলে আপনে দিনে দুই বার করে পুদিনাপাতার চা তৈরি করে খেতে পারেন। এতে তারাতাড়ি খাবার হজম করে থাকে। আশ যুক্ত খাবার খেলেও তারাতাড়ি হজম হয় সে খাবার। 

কি কি ব্যয়াম করতে হবে

আমরা অনেক মানুষ আছি যে অনেক কিছু মেনে চলি আবার অনেক মানুষ আছে যে মেনে চলে না অনেক কিছু। তবে তাতে কিছু আসে যাই না। তবে আপনে যদি খাবার তারাতাড়ি হজম করাতে চান তা হলে আপনাকে ব্যয়াম করতেই হবে। কারণ ব্যয়াম করলে খাবার টা ভালো ভাবে পরিপাক হয়ে হজম হয়ে যায়। তবে সব ব্যয়াম করা যাবে না। হজম তারাতাড়ি করাতে হলে কিছু ব্যয়াম আছে সে গুলো করতে হয়।
যেমন সকালে হাঁটা হাটি করা, পেটে চাপ লাগে এমন ব্যয়াম করা, খাওয়ার ২ ঘন্টা পরে ঘুমানো। যদি আপনে ব্যয়াম না করে থাকেন তা হলে আপনার খাবার তারাতাড়ি হজম করাতে পারবেন না। এতে আপনার শরীরে অনেক সমস্যা হতে পারে। আপনে অসুস্থ হয়ে পরতে পারেন এবং কি আপনে অনেক বড় সমস্যা মধ্যে পরতে পারেন।তাই খাবার তারাতাড়ি হজম করাতে চাইলে ব্যয়াম গুলো করতেই হবে।

একদিনে কেমন ঘুমানো প্রয়োজন

আমরা অনেকে মনে করি থাকি যে খাবারের সাথেই হজম তারাতাড়ি হওয়ার কথা। এটা মনে করে অনেকে তাই করে তারা খাবার গুলো ভালো করেই খাই। তবে রাতে যে কয় ঘন্টা ঘুম আসলে আমাদের শরীর ও ভালো থাকবে আর আমাদের খাবারও হজম তারাতাড়ি হবে তা আমরা অনেকে যানি না। সারাদিনে কম করে হলেও ৭,৮ ঘন্টা ঘুম এর প্রয়োজন পরে একটি মানুষের।
তা হলে তার খাবার গুলো তারাতাড়ি হজম করাতে সাহায্য করে থাকে। আর রাত জাগা তো একে বারে চলবে না। সকাল সকাল ঘুমিয়ে পরতে হবে ও ভরে ঘুম থেকে উঠে পরতে হবে। এতে করে শরীরের হজম শক্তি ঠিক থাকে ও হজম তারাতাড়ি হয়। অনেক ছেলেরা আাছে যে অনেক রাত যেগে থেকে ধুমপান করে থাকে এটা তো একে বারে করা যাবে না। ধুমপান করলেও হজমে সমস্যা হয়। 

নেশা জাতীয় খাবার কি খাওয়া যাবে

আমরা অনেক ছেলে বা মেয়েরা আছি যে কিছু কিন্তু নেশা জাতীয় খাবার না খেলে আমাদের হয়তো ঘুমি আসে না। কিন্তু নেশা জাতীয় খাবার খেলে যে কত সমস্যা হয় তা হয় তো তার জানা নাই। নেশা জাতীয় খাবার খেলে খাবার তারাতাড়ি হজম হতে চাই না। ধুমপান, মদ্যপান, পান ইত্যাদি খেলে আমাদের শরীরের যে সব রোগ প্রতিরোধ করতে পারে তা আর পারে না আস্তে আস্তে।
যার ফলে খাবার তারাতাড়ি হজম হতে চাই না য়ার ফলে নানা রকম সমস্যা হতে থাকে বা হয়। আবার অনেক এ আছে যে অধিক পরিমাণে তেলে ভাজা খাবার খেতে ভালো বাসে , আবার অনেক এ আছে অধিক পরিমাণে মসলা যুক্ত খাবার বেশি করে খেয়ে থাকে তবে এসব খাওয়া একে বারে যাবে না। কারণ এসব খাবার খেলে কোনো দিনো সে খাবার তারাতাড়ি হজম হবে না বরং দেহের উপর নানা ধরনের সমস্যা সৃষ্টি করে থাকে।তাই আমরা কেউ এসব খাবার খেতে চাইবো না। 

শেষকথা – কি খেলে খাবার তাড়াতাড়ি হজম হয়

আমাদের অনেক পরিবার আছে যে কোন খাবার খেলে কি হতে পারে তার কোনো ধারণাও রাখে না। যার ফলে নানা ধরনের অসুখ দেখাতে পাওয়া যায় তাদের ভেতর। তবে যদি তারা নিয়ম যেনে খাবার খাই তা হলে আমি মনে করি তাদের আর কোনো সমস্যা হবে না।

আরো পড়ুনঃ কোষ্ঠকাঠিন্য ইসবগুলের ভুষি খাওয়ার নিয়ম

অনেক পরিবার আছে যে কি খাবার খেলে তারাতাড়ি হজম হয় তাই জানে না যার ফলে যা পাই তাই খাই তো পরে খাবার হজম হয় না পরে চিন্তাতে পরে যায়। তাই সঠিক নিয়ম মেনে খেলে সব সময় সুস্থ থাকতে পারবো আমরা সবাই।

Leave a Comment